হা’র্ট অ্যা’টা’কে’র এক মাস আগে থেকেই শ’রীর যে ৭টি সিগনাল দেয়, সত’র্ক হন!

হা’র্ট অ্যা’টা’কে’র এক মাস আগে থেকেই শ’রীর যে ৭টি সিগনাল দেয়, সত’র্ক হন!

আপনি জা’নেন কি? হার্ট অ্যা’টাকের এক মাস আগে থেকেই দে’হ কিছু সত’র্কতা সং’কেত দিতে শুরু করে। ৭টি লক্ষণ আছে যেগুলো দেখা গেলে বুঝবেন আপনি শি’গগিরই হার্ট অ্যা’টাকে আ’ক্রান্ত হতে যা’চ্ছেন। ল’ক্ষণগুলো দেখা গেলে দ্রু’ত ডাক্তারের স’ঙ্গে যোগাযোগ করুন। জে’নে নেয়া যাক-

১. অস্বা’ভাবিক রকমের শা’রীরিক দু’র্বলতা- র’ক্তপ্রবাহ কমে গেলে এবং র’ক্ত চলাচল বা’ধাগ্রস্ত হলে এমনটা হয়। র’ক্তের শিরা-উপশিরাগুলোতে চর্বি জমে বা’ধা সৃষ্টি করলে এবং মাংসপে’শী দু’র্বল হয়ে প’ড়লে হৃ’দরো’গের প্র’ধানতম এই লক্ষণটি দেখা দেয়।

২. ঝিমুনি- দে’হে র’ক্তের প্র’বাহ কমে গেলে ঝি’মুনিও দেখা দেয়। ম’স্তিষ্কে র’ক্ত প্রবাহ কমে গেলে ঝি’মুনির সৃষ্টি হয়।৩. ঠাণ্ডা ঘাম- র’ক্তপ্রবাহ কমে গেলে দে’হে ঘাম ঝ’রলে স্যাঁ’তসেতে ও ঠাণ্ডা ভাব অ’নুভূত হবে।

৪. বুক ব্য’থা- বুক, বা’হু, পিঠ এবং কাঁধে ব্যা’থা অ’নুভূত হলে দ্রু’ত ডাক্তারের স’ঙ্গে যোগাযোগ করুন। বুকে ব্য’থা এবং সং’কোচন হৃৎপি’ণ্ডের অসু’স্থতার একটি বড় লক্ষণ।

৫. ঠাণ্ডা বা ফ্লু- হার্ট অ্যা’টাকের শি’কার অনেককেই এক মাস আগে থেকে ঠাণ্ডা-স’র্দি বা ফ্লু-তে আ’ক্রান্ত হতে দেখা গেছে।৬. শ্বা’সকষ্ট- ফু’সফুসে পর্যা’প্ত পরিমাণে অক্সিজেন এবং র’ক্ত সরবরাহ না হলে এই ধ’রনের সম’স্যা দেখা দেয়। হা’র্টের সম’স্যা থাকলে ফু’সফুসে র’ক্ত চলাচল কমে যায়। আর শ্বা’সকষ্ট বা শ্বা’স ছোট হয়ে আসার মতো সম’স্যা দে’খা যায়।

৭. বমি, ব’দহ’জম, ত’লপে’টে ব্য’থা- ব’মিভাব, বদহজ’ম, বুক হৃৎপি’ণ্ডে জ্বা’লাপোড়া করা বা ত’লপে’টে ব্য’থাও অনেক সময় হার্ট অ্যা’টাকের পূর্ব লক্ষণ হতে পারে। সুতরাং এই লক্ষণগুলো দেখা গেলেও হৃ’দরো’গের ডা’ক্তারের স’ঙ্গে প’রামর্শ করুন।সূত্র : ওয়ান ইন্ডিয়া

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button
Close
Close