১১৩ কেজি ওজনের মাছ ধরে ভাগ্য ফিরেছে, লক্ষপতি হলেন অভাবী জেলে!

১১৩ কেজি ওজনের মাছ ধরে ভাগ্য ফিরেছে, লক্ষপতি হলেন অভাবী জেলে!

কুড়িগ্রামের চিলমারী উপজেলায় ব্রহ্মপুত্র নদ থেকে স্থানীয় জেলের জালে ধরা পড়েছে ১১৩ কেজি ওজনের একটি বিশাল আকৃতির বাঘাইড় মাছ। মাছটি বিক্রি হয়েছে ১ লাখ ১৩ হাজার টাকায়। একটি মাছেই ভাগ্য ফিরেছে ঋণগ্রস্ত অভাবী জেলে আসাদুলের। বুধবার দুপুরে চিলমা’রী উপজেলার স্থা’নীয় মানুষজন এক হাজার টাকা কেজি দরে ভাগাভাগি করে মাছটি কিনে নেন।

এর আগে সকালে ব্রহ্মপুত্র নদে জে’লে আসাদুল ইসলামের জালে মাছটি ধরা পড়ে। জেলে আসাদুল আবেগাপ্লুত হয়ে বলেন, আমি ঋণগ্রস্ত মানুষ। তাই আল্লাহ আমার দুঃখ-দুর্দশা ঘোঁচাতে মাছটি জালে পাঠিয়েছেন।

মাছটি বিক্রি করে ঋণের অর্থ পরিশোধ করে স্ত্রী-সন্তাদের নিয়ে এখন দুবেলা দুমুঠো খেয়ে পরে শান্তিতে থাকতে পারবো। ক্রেতাদের একজন চিলমারী উপজেলার থানাহাট ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক মিলন বলেন, বাঘাইড় মাছটি অনেক বড়।

সচরাচর এতবড় মাছ চোখে পড়ে না। বাপ-দাদাদের মুখে শুনেছি ৪/৫ মণ ওজনের বিশাল সাইজে’র মাছ পাওয়া যেত ব্রহ্মপুত্রে। হঠাৎ করেই বড় সাইজের মাছটি পাওয়ায় দুই কেজি কিনেছি।

চিলমারী উপজেলা মৎস্য কর্মর্তা মো. বদরুজ্জামান মিয়া বলেন, প্রতিবছরই ৩৫-৪০টি বাঘাইড় মাছ ব্রহ্মপুত্র নদে ধরা পড়ে। ১১৩ কেজি ওজনের বেশ বড় একটি বাঘাইড় মাছ ধরা পড়ায় স্থানীয় একটি বাজারে ১ লাখ ১৩ টাকায় মাছটি বিক্রি হয়েছে। জেলায় এবছর ধরা পড়া সর্বোচ্চ সাইজের মাছটি স্থানীয়রা ১ হাজার টাকা কেজি দরে কিনে নিয়েছেন।

এ সম্পর্কিত আরও পোস্ট

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button
Close
Close