বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়: জানুয়ারি থেকে দুই সেমিস্টারে ভর্তি

বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়: জানুয়ারি থেকে দুই সেমিস্টারে ভর্তি

বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে দুই সেমিস্টারে শিক্ষার্থী ভর্তির জন্য বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর উপর নতুন করে শর্ত আরোপ করেছে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশন (ইউজিসি)। আগামী বছরের জানুয়ারি মাস থেকে এটি কার্যকর করতে বলা হয়েছে। গত ৯ আগস্ট শিক্ষার্থীদের জন্য ইউনিক পরিচিতি নম্বর তৈরির চিঠিতে এই শর্ত জুড়ে দিয়েছে ইউজিসি। এ নিয়ে ভিন্ন প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে বেসরকারি বিশ্ববিদ্যায়গুলেতে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র থেকে জানা গেছে, বেরসকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর রেজিস্ট্রার বরাবর পাঠানো এক চিঠিতে শিক্ষার্থীদের ‘ইউনিক স্টুডেন্ট আইডেন্টিফিকেশন নম্বর’ তৈরির নির্দেশনা দেওয়া হয় । ওই চিঠিতে ২০২২ সালের জানুয়ারি থেকে দুই সেমিস্টারে শিক্ষার্থী ভর্তির শর্ত দেওয়া হয়েছে। ২০২২ সাল পর থেকে দুই সেমিস্টার ছাড়া শিক্ষার্থী ভর্তি হলে কমিশনের কাছে তা গ্রহণযোগ্য হবে না বলেও চিঠিতে উল্লেখ করা হয়েছে। যদিও নতুন কোর্স খোলার ক্ষেত্রে এটি কার্যকর হবে কিনা তা চিঠিতে উল্লেখ করা হয়নি।

বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলো বলছে, এত বড় নির্দেশনা দেওয়ার আগে এই বিষয়ে তাদের সাথে আলোচনা করা দরকার ছিল। কোনো প্রকার আলোচনা ছাড়াই এমন সিদ্ধান্ত জোর করে চাপিয়ে দেওয়া হচ্ছে । বিষয়টি উচ্চশিক্ষার ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি করতে পারে। কেননা কোনও সিদ্ধান্ত জোর করে চাপিয়ে দিয়ে মানসম্মত শিক্ষা অর্জন সম্ভব হয় না। বেসরকারি বিশ্ববিদ্যলয়গুলোর ওপর চাপ সৃষ্টির জন্য নতুনভাবে অপকৌশল শুরু করেছে ইউজিসি।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য জানান, ‘পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে সাধারণত অ্যকাডেমিক বিষয় অনুমোদন দেয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাকাডেমিক কাউন্সিল। দুই সেমিস্টারে শিক্ষার্থী ভর্তির শর্তারোপ আইনের ব্যত্যয়, যা বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর ওপর অযথা চাপ সৃষ্টির জন্য করা হয়েছে।’

ইউজিসির পাঠানো চিঠির অংশে লেখা হয়েছে, ‘যেসব বিশ্ববিদ্যালয়ে বছরে তিন সেমিস্টারে শিক্ষার্থী ভর্তি করা হয়েছিল সেগুলোতে দুই সেমিস্টার ছাড়া কোনও সেমিস্টার থাকলে সেটির কোড হবে ৩। তবে কোনোক্রমেই ২০২১ সালের পর বছরে দুই সেমিস্টার ছাড়া শিক্ষার্থী ভর্তি কমিশনের কাছে গ্রহণযোগ্য হবে না।’

ইউজিসি’র নতুন শর্ত জুড়ে দেওয়ার বিষয়ে গণমাধ্যমের কাছে নিজের অভিমত ব্যক্ত করেছেন বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় সমিতির সভাপতি শেখ কবির হোসেন। তিনি জানিয়েছেন, ‘যারা নতুন বিষয় খুলতে চাচ্ছে তাদের এই শর্ত দিয়ে দিচ্ছে, যা আইনের মধ্যে পড়ে না। এ নিয়ে আমরা কথা বলবো।’

এ বিষয় ইউজিসি’র সদস্য অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ আলমগীর বলেন, ‘দুই সেমিস্টারে ভর্তি করানোর পর কোনও শিক্ষার্থী যদি অকৃতকার্য হয় বা সেমিস্টার চালিয়ে নিতে ব্যর্থ হয় সেক্ষেত্রে তখন ওই শিক্ষার্থী তিন সেমিস্টারে ভর্তি হবে।’

এ সম্পর্কিত আরও পোস্ট

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button
Close
Close