সাধারন লেবুর ১০টি অবাক করা উপকারিতা

লেবুর শরবত খেলে এই গরমে আপনার স্বস্তি লাগে। লেবুর উপকারিতা বলতে আপনি হয়তো এটাই জেনে এসেছেন। যারা আরেকটু বেশি জানেন, তারা হয়ত বলবেন, লেবুতে প্রচুর ভিটামিন সি থাকার কারণে এটি স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী। United States Department Of Agriculture এর মতে, ১/৪ কাপ লেবুর রস থেকে ২৩.৬ মিলিগ্রাম ভিটামিন সি পাওয়া যায়। তবে, অবাক করার মত বিষয় এই যে, লেবুর বহুবিধ উপকারের কথা অনেকেরই অজানা।

দেহ’র আজকের আলোচনার বিষয়ে রয়েছে লেবুর নানা উপকারের কথা যা হয়ত আপনি আগে জানতেন না।
ভিটামিন সি’র ভালো উৎসঃ গবেষণায় দেখা যায়, একজন প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষের দৈনিক ৬৫ থেকে ৯০ মিলিগ্রাম ভিটামিন সি প্রয়োজন। একটি লেবুতে ১৮ মিলিগ্রাম ভিটামিন সি বিদ্যমান। তাহলেই বুঝতে পারছেন, ভিটামিন সি’র একটি বড় উৎস হচ্ছে লেবু।

ওজন কমানোর হাতিয়ার লেবুতে প্রচুর পরিমাণে পেকটিন (ক্ষুধা নিয়ন্ত্রক ফাইবার) থাকার কারণে ক্ষুধা কম লাগে। ওজন কমাতে চাইলে প্রতিদিন খাবারের পাতে লেবু রাখুন। প্রতিদিন সকালে খালি পেটে লেবু পানি খাওয়ার অভ্যাস ও খারাপ না। শুধু লেবু পানি খেতে না চাইলে মধু মিশিয়েও খেতে পারেন। হজমে সাহায্য করে

লেবুতে বিদ্যমান ফাইবার পেট পরিস্কার করতে সাহায্য করে। কুসুম গরম পানিতে লেবুর রসের মিশ্রণ দিয়ে শুরু হতে পারে আপনার সুন্দর সকাল। হজমশক্তি বাড়ার সাথে সাথে পাকস্থলি পরিস্কার রাখে এই লেবু পানি।পাশাপাশি বর্জ্য নিষ্কাশনে সহায়তা করে।রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় প্রচুর পরিমানে ভিটামিন সি থাকার সাথে সাথে লেবুতে রয়েছে ক্যালসিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, আয়রন,পটাসিয়াম , অ্যাসকরবিক এসিড,ফলিক এসিড ইত্যাদি। জ্বরের জন্য ভিটামিন সি ও আয়রন খুব উপকারী। মস্তিষ্ক ও স্নায়ুকোষকে সচল রাখতে পটাসিয়াম কার্যকরী ভূমিকা পালন করে। শরীরে যদি ব্যাথা জনিত অসুবিধা থাকে তাহলে অ্যাসকরবিক এসিড তা দূর করে।

ত্বক পরিস্কার রাখে লেবুতে থাকা কার্যকরী অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ত্বকের দাগ দূর করে। আপনি যদি স্বাস্থ্যোজ্জ্বল ত্বক পেতে চান তাহলে ভিটামিন সি এর বিকল্প নেই। ব্রণ দূর করে আপনার তারুণ্য ধরে রাখবে।ক্লান্তি দূর করে সতেজ রাখে গরমে বা রোদে অস্থির হয়ে গেলে আপনার কাজে মন স্বাভাবিক ভাবেই বসে না। ঠান্ডা একগ্লাস লেবুর শরবত নিমিষেই মানসিক চাপ ও ক্লান্তি দূর করে দেয়। আপনার যখন প্রচুর কাজের চাপ থাকে তখন ভিটামিন সি এর ঘাটতি দেখা দেয়। লেবু সেই ঘাটতি পূরণ করে মন চাঙ্গা করে দেয়।

পিত্তথলির পাথর কমায় অনেকের কিডনিতে পাথর তৈরি হওয়ার ফলে পেটে প্রচুর ব্যথা অনুভব হয়। লেবুর রস পিত্ততে জমে থাকা পাথর গলিয়ে ফেলতে সাহায্য করে। কার্যকরী লেবুর রস আপনাকে ব্যথামুক্ত সুস্থ জীবন উপহার দিতে পারে।লেবুর অ্যাসিড পিএইচ মাত্রা নিয়ন্ত্রন করে আপনি জেনে অবাক হবেন, লেবু অ্যাসিডিক ফল হলেও এসিডিটি তৈরি করে না। লেবুর রস + পানি পান করলে শরীরের পিএইচের মাত্রা ঠিক থাকে। অনেকেই গরুর মাংস খেতে পছন্দ করেন বা বা অ্যালকোহল গ্রহণ করার প্রবণতা থাকে।

লেবু তাদের জন্য সবচেয়ে বেশি দরকারি। লেবুর পানি শরীর আর্দ্র রাখে বেশি পানি পান করার অভ্যাস অনেকের মধ্যেই দেখা যায় না। যাদের পানি পান করার ব্যপারে অনীহা রয়েছে, তাদের জন্য ভালো উপায় হচ্ছে পানির সঙ্গে লেবুর রস মিশিয়ে পান করা। এতে পানি পান করার সাথে সাথে শরীর আর্দ্র থাকবে। লেবুর সৌরভ নিশ্বাসে সজীবতা আনেখাওয়ার পর অনেক সময় মুখে দুর্গন্ধ লেগে থাকে। মাছ- মাংস বা পেঁয়াজ, রসুনের গন্ধ থেকে মুক্তি পেতে খাওয়ার পর এক গ্লাস লেবুর পানি পান করুন। মুখের দুর্গন্ধ দূর করে নিশ্বাসে সজীবতা আনে। আপনাদের অজানা বিষয়গুলো নিয়ে সর্বদা কাজ করে যাচ্ছে দেহ। আপনার পরিবার পরিজনের সাথে আমাদের লেখাগুলো শেয়ার করুন। সর্বদা দেহ’র পাশে থাকুন।

এ সম্পর্কিত আরও পোস্ট

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

Back to top button
Close
Close